জুমলা বাংলা টিউটোরিয়াল পর্ব ০১ঃ জুমলা কি এবং কেন ব্যবহার করা হয়?

জাদের Web Desing & Devolopment  এর  উপর ঝোঁক আছে তাদের জন্য আজ থেকে সুরু হল জুমেলা নিয়ে সিরিজ পোস্ট এই পোস্ট এ আসা করি আপনি জুমেলা সম্পর্কে সকল বিষয় জানতে পারবেন.



পর্ব ১- 

জুমলা বাংলা টিউটোরিয়াল পর্ব ০১ঃ জুমলা কি এবং কেন ব্যবহার করা হয়?

 

 

অনলাইনের জগৎ এ জুমলা অতি পরিচিত একটি সিএমএস। আমি নিশ্চিত প্রায় সবাই এই সম্পর্কে জানেন অথবা নাম শুনেছেন। অনেকেই হয়ত ব্যবহার করেছেন এছাড়া জনপ্রিয় অনেক ওয়েবসাইটই জুমলাকে কেন্দ্র করে গড়ে উঠেছে। আমাদের দেশেও বিভিন্ন ওয়েবসাইটে সিএমএস হিসেবে জুমলার ব্যবহার লক্ষ্যনীয়।

যাই হোক, প্রথমেই বলেছি জুমলা একটি CMS বা কন্টেন্ট ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম (Content Management System)। এরকম আরো একটি জনপ্রিয় সিএমএস হচ্ছে ওয়ার্ডপ্রেস যা মূলত ব্লগ প্লার্টফর্ম হিসেবে অধিক ব্যবহৃত হয়। বলাই বাহুল্য জুমলা এবং ওয়ার্ডপ্রেস উভয় সিএমএস গড়ে উঠেছে অতি জনপ্রিয় সার্ভার সাইড ল্যাঙ্গুয়েজ পিএইচপি এবং মাইএসকিউএল ডাটাবেজ এর উপর।

জুমলাকে ব্যবহার করে খুব সহজেই সম্পূর্ন নিজস্ব একটি ডাইনামিক ওয়েবসাইট গড়ে তোলা সম্ভব। বেশ কিছু জনপ্রিয় সংস্থা এবং ওয়েবসাইট জুমলা ব্যবহার করছে এর মধ্যে হাভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়, লিনাক্স ফাউন্ডেশন এবং জনপ্রিয় গাড়ি প্রস্তুতকারক সংস্থা মিৎসুবিশি এবং পোর্শের বিভিন্ন ওয়েবসাইট উল্লেখযোগ্য।

জুমলা ব্যবহার করে যে ধরনের ওয়েবসাইট তৈরী করা সম্ভব –

১) অনলাইন ম্যাগাজিন বা সংবাদপত্র

২) ইকমার্স বা যেকোন ব্যাবসায়িক ওয়েবসাইট।

৩) বিভিন্ন দাতব্য সংস্থার ওয়েবসাইট

৪) স্কুল, কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয়ের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট

৫) কর্পোরেট ওয়েবসাইট অথবা পোর্টাল।

৬) কমিউনিটি ওয়েবসাইট।

৭) ব্যাক্তিগত ওয়েবসাইট।

৮) সোশ্যাল নেটওয়ার্ক।

এছাড়া আরো অনেক ধরনের ওয়েবসাইট তৈরী করা সম্ভব যা সম্পূর্ন আপনার উপর নির্ভর করে। ফেসবুকের মত জনপ্রিয় সোশ্যাল নেটওয়ার্কের মত সম্পূর্ন ব্যাতিক্রমধর্মী যেকোন ওয়েবসাইটই জুমলা ব্যবহার করে তৈরী করা যায়।

যেসব কারনে জুমলা ব্যবহার করা উচিত –

১) জুমলা সম্পূর্নই বিনামূল্যে ব্যবহার করা যায়। এটি সম্পূর্ন ফ্রীতে ডাউনলোড যায়।

২) এটি ওপেন সোর্স তাই একে ডেভেলপ করাও সম্ভব।

৩) ওপেন সোর্স হওয়ার কারনে এটি তুলনামূলক দ্রুত আপডেট হয় তাই এর পূর্ববর্তী সংষ্করনে থেকে যাওয়া সমস্যার দ্রুত সমাধান পাওয়া যায়।

৪) ইন্টারনেটে জুমলার জন্য প্রচুর টেমপ্লেট ও এক্সটেনসন বিনামূল্যে পাওয়া যায় যা দিয়ে ওয়েবসাইটকে আরো আকর্ষনীয় এবং আধুনিক বৈশিষ্ঠ্যপূর্ন করে তোলা যায়।

৫) একটি ওয়েবসাইটে খুব দ্রূত এবং সহজে পরিচালনা করা যায়।

৬) সাধারনভাবে পরিচালনার জন্য খুব বেশি টেকনিক্যাল জ্ঞানের প্রয়োজন হয় না।

৭) এছাড়া ওয়েব ডেভেলপারদের জন্য জুমলা খুবই সম্ভাবনাময় ক্ষেত্র।

৮) জুমলা দিয়ে তৈরী করা ওয়েবসাইট ডেভেলপ করার জন্য জুমলা ডেভেলপার খুবই সহজলভ্য।

জুমলা ডাউনলোড করতে পারবেন – ডাউনলোড জুমলা




টেকহাব এর সাথে থাকবেন। কপিরাইট © ২০১৭ | প্রকাশিত লেখাসমুহ টেকহাব.কম.বিডি দ্বারা সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। অনুগ্রহপূর্বক অনুমতি ব্যতীত এই ওয়েবসাইটের কোন লেখা অন্য কোথাও প্রকাশ করবেন না করলে আইনত ব্যবস্তা গ্রহন করা হবে। ধন্যবাদ।

Author: UDOY

Hlw,I am Udoy Saha Abir.

Leave a Reply

1 COMMENT

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here