সাইবার সিকিউরিটি স্পেশালিস্ট‘দের কিছু উল্লেখযোগ্য বৈশিষ্ট্য সমূহ

বছর কয়েক ধরে পোলাপানের একটা রোগ হইসিলো হ্যাকার হওয়া। এখন যুগ পাল্টাইসে, সবাই এখন নিজেরে হ্যাকার না বলে “সিকিউরিটি স্পেশালিস্ট” হিসেবে দাবি করে। অনেকে তো ফার্ম খুলে বসছে। অনেকে ডিবি পুলিশ টুলিশ নিয়া বিভিন্ন ভার্সিটিতে সেমিনারটেমিনার-ও করে সাইবার সিকিউরিটি নিয়া, ওদের দাবি এতে করে ছাত্রছাত্রীরা নিজেদের সেইফ রাখবে, নিজেদের “সাইটের” নিরাপত্তা নিজেরাই দিবে। আগে মানুষ হ্যাকাদের খারাপ ভাবতো, ওদের কারনে নাকি ভালো ভাবছে। আরো কয়েকজনরে দেখলাম বড় বড় লেকচার দিতে– আপনার সাইটে বড় বড় ফুটা থাকতে পারে, তাতে করে আপনার হেন বিপদ ত্যান বিপদ। হ্যাকার রা হ্যান করবে, ত্যান করবে। সিরিয়াসলি? উদ্দ্যেগটা মহৎ, তাতে কোনো সন্দেহ নাই, কিন্তু উনাদের কথা শুনে যা বুঝলাম তাতে করে মনে হয় সাইবার সিকিউরিটি মানে ওয়েবসাইটের নিরাপত্তা। কিংবা হ্যাকার রা অনেক বড় থ্রেট।

সাইবার সিকিউরিটি মানে কম্পিউটারের নিরাপত্তা। উনাদের উচিত সাইবার সিকিউরিটি নিয়ে লেকচার দেয়ার আগে সাইবার সিকিউরিটি নিয়ে আগে কিছু পড়াশোনা করা। উনাদের কারনে অন্যেরাও মিসগাইডেড হচ্ছে। লোকজন ভাববে আমার তো সাইট নাই, আমি নিরাপদ, বা আমার তো ক্রেডিট কার্ড নাই, আমি নিরাপদ। সাইবার সিকিউরিটি মানে মোটেও কম্পিউটারের নিরাপত্তা না, আর সাইবার থ্রেট হিসেবে হ্যাকাররাও সবচেয়ে বড় থ্রেট না। সাইবার সিকিউরিটি মানে হচ্ছে তথ্যের নিরাপত্তা। সাইবার ওয়ার্ল্ডের সব কিছুই তথ্য। আপনার ব্যাক্তিগত তথ্য চুরি হলে আপনাকে অনেক ধরনের সমস্যায় পরতে হতে পারে, চলেন দেখি হ্যাকাররা কেমন থ্রেট? হ্যাকারদের কাছে আপনার সব কিছুই ইম্পরট্যান্ট না, ওদের টার্গেট কেবল বিভিন্ন পাসওয়ার্ড, আপনার ব্যাঙ্কিং তথ্য, এবং খেত্র বিশেষে আপনার আইডেন্টিটি, পরে ওই আইডেন্টিটি ইউজ করে নিজেকে সেইফ জোনে রাখতে পারবে, মাঝখানে ফাসবেন আপনি। কিন্তু যেকোনো দেশের সরকারের কাছে আপনার সবকিছুই ইম্পরট্যান্ট, আপনি অনলাইনে কই যাচ্ছেন, কাকে মেইল করছেন, কি মেইল করছেন, কি লিখছেন, কার কার সাথে যোগাযোগ আছে সব কিছুই ইম্পরট্যান্ট, আর তাই সাইবার সিকিউরিটির ক্ষেত্রে সবচেয়ে বড় থ্রেট বিভিন্ন দেশের সরকার গুলো। আলোচনার এক পর্যায়ে হ্যাকিং এর অনেক গুরুত্বপূর্ণ বিষয় রয়েছে যা সুপ্রিয় পাঠক বৃন্দদের জানা উচিৎ। মাইন্ড হ্যাকিং, হ্যাকিং জগতের এক অন্যতম ধারার নাম। হেপ্নটিজম ও এই পর্যায়ে পরতে পারে। মাইন্ড হ্যাকিং এই পোস্টটি পরুন বিস্তর ধারনার জন্য। অনলাইন মার্কেটপ্লেস ও মাইন্ড হ্যাকিং এর বাহিরের জগত নয়। প্রতিনিয়ত কেউ না কেউ আপনাকে ঠিকই হ্যাক করে চলেছে। সিকিউরিটি স্পেশালিস্ট বা  ওল্ডেজ হ্যাক বা হ্যাকিং দুনিয়ার আরও বিস্তারিত জানতে হ্যাক কি? হ্যাকিং নিয়ে আমাদের যতো ভুল ধারনা পোস্টটি দেখতে পারেন।

সিকিউরিটি স্পেশালিস্ট

প্রায় প্রত্যেকটা সরকার তাদের নাগরিকদের উপরে এবং নাগরিকদের প্রতিষ্ঠানের উপরে নজরদারি করে, একজন সিকিউরিটি স্পেশালিষ্ট হিসেবে এই থ্রেট মুকাবেলা করার সামর্থ্য আপনাদের আছে? আপনাদের থ্রেট আইডেন্টিফাই করার ক্ষমতা আছে? তথ্য চুরি হ্যাকাররা করে, সরকারও করে, এমনকি আপনার প্রতিদ্বন্দ্বীরাও করতে পারে, করপোরেট এস্পিওনা জ, ইন্ডাস্ট্রিয়াল এসপিওনাজ এসব এখন কমন থ্রেট। থ্রেট আইডেন্টিফাই করে ওইটার এগেন্সটে প্রটেকশনের ব্যবস্থা করা, ক্ষেত্রবিশেষে কোত্থেকে আসছে, কিভাবে আসছে তা আইডেন্টিফাই করতে পারবেন? সব সরকারই উচ্চ প্রযুক্তি ব্যবহার করে, হ্যাকারেরাও করে, আপনার কি ক্ষমতা আছে এইসব প্রযুক্তিরসাথে পাল্লা দিয়ে একটা সিস্টেমকে সিকিউরড রাখা? সাইবার হামলা বলতে কি বুঝায় তাও একবার চোখ বুলিয়ে আইসেন, কারন এইখানেও আপনাদের গলদ আছে, কয়েকটা গভ সাইট ডিফেস মারলেই ওইটা সাইবার ওয়ার হয়না। মার্কিনীদের ইরানের নাতাঞ্জ পরমানু কেন্দ্রে Stuxnet ভাইরাস দিয়ে হামলা চালিয়ে বন্ধ করে দিসিলো, ইরানিরা এর দুই বছর পরে সৌদি আরবের আরামকোর ২০০+ কম্পিউটারের সব তথ্য নষ্ট করে দেয়, কিংবা বোয়িং এর সার্ভার থেকে চাইনিজ হ্যাকারেরা মিসাইল/ ফাইটার টেক চুরি করে, কিংবা উইকিলিক্স যেভাবে বিভিন্ন দেশের গোপন তথ্য, ফোন টেপ করে এইগুলা সাইবার এটাক, এইগুলারে কাউন্টার করার রসদ আছে তো আপনাদেরভান্ডারে? ওয়েবসাইট মানেই সাইবার ওয়ারল্ড না, এটা খুব ছোট একটা প্লেস সাইবার ওয়ার্ল্ডে। সবচেয়ে বড় কথা হল শুধু মাত্র ওয়েব এপ্স নিয়ে কাজ করতে হলেও আপনাকে ফয়সাল ভাই, তারেক ভাই বা মির্জা ভাইয়ের কাছাকাছি যোগ্যতা অর্জন করতে হবে। একবার তাদের পাশে নিজেকে বসিয়ে চিন্তা করে দেখুন তো আপনারা কোথায় আছেন? তারপরেই নাহয় সিকিউরিটি ফার্ম করে কিছু পয়সা কামালেন!!



টেকহাব এর সাথে থাকবেন। কপিরাইট © ২০১৭ | প্রকাশিত লেখাসমুহ টেকহাব.কম.বিডি দ্বারা সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। অনুগ্রহপূর্বক অনুমতি ব্যতীত এই ওয়েবসাইটের কোন লেখা অন্য কোথাও প্রকাশ করবেন না করলে আইনত ব্যবস্তা গ্রহন করা হবে, ধন্যবাদ।

Author: UDOY

Hlw,I am Udoy Saha Abir.

Leave a Reply

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here